মিরপুর ক্লাবের ‘ফুড ব্যাগ প্রোগ্রামের সহযোগি বনানীর এক হোটেল পরিবার

করোনা আপডেট

মিরপুর ক্লাবের ধারবাহিক ‘ফুড ব্যাগ প্রোগ্রাম’ এর অংশ হিসেবে আজ মনিপুর ও ৬০ ফুট রোডের আশে-পাশের বিভিন্ন এলাকায় নিম্ন আয়ের পরিবারগুলোর মাঝে ফুড ব্যাগ বিতরন করা হয়েছে। মিরপুর ক্লাবের এই উদ্দোগের সহযোগী হিসেবে ক্লাবের সদস্য ও শুভাকাংক্ষী ছাড়াও বিভিন্ন সংগঠন ও এসোসিয়েসন এগিয়ে আসছে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে। এরই অংশ হিসাবে ‘মিশন সেইভ বাংলাদেশ’ এর পর এগিয়ে এসেছে ‘বুয়েট ৯০ ব্যাচ’ এর বন্ধুরা। আর আজ আমাদেরকে সহযোগিতার হাত বাড়িয়েছেন বনানীর নাম করা এক হোটেল পরিবার। মিরপুর ক্লাবের ‘ফুড ব্যাগ প্রোগ্রামের নতুন এই সহযোগি বনানীর কোন এক বিশাল হোটেলের চেয়ারম্যান ম্যাডাম। তিনি তার পিএস এর মাধ্যমে ১০০ ফুড ব্যাগ মিরপুর ক্লাবের মাধ্যমে বিতরনের জন্য ক্লাবে পৌঁছে দিয়েছেন। তিনি ফেসবুকে মিরপুর ক্লাবের সকল পোস্ট দেখেন এবং পড়েন।

আমাদের এ উদ্দোগে তিনিও শরীক থাকতে চান, তাই নিজ উদ্দোগেই যোগাযোগ করে ফুড ব্যাগগুলো পাঠিয়েছেন। মিরপুর ক্লাবের উপর আস্থা রাখার জন্য আমরা তাকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানাচ্ছি। ‘মিশন সেইভ বাংলাদেশ’ এবং ‘বুয়েট ৯০ ব্যাচ’ এর পর আজ ঢাকার নামকরা এক হোটেল পরিবার থেকে যুক্ত হওয়ায় আমরাও আরও বেশী সহযোগিতা করতে পারবো এ বিপন্ন মানুষগুলোর জন্য।আলহামদুলিল্লাহ, ইতিমধ্যেই “বুয়েট ৯০ ব্যচে”র ২য় কিস্তির ১০০ ফুড ব্যাগও ডিস্ট্রিবিউশনের জন্য রেডি। এ বিপদের সময় আমাদের সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে নিজ নিজ অবস্থান থেকে। মিরপুর ক্লাবের ফুড ব্যাগ প্রোগ্রাম ধারাবাহিকভাবে চলছে গত ২৫শে মার্চ, ২০২০ তারিখ থেকে। প্রান্তিক পর্যায়ের সত্যিকারের বিপন্ন মানুষের কাছে খাদ্য সহায়তা পৌঁছানোই ফুড ব্যাগ প্রোগ্রামের উদ্দেশ্য। কাঠফাটা রোদে লাইন দিয়ে দাড় করিয়ে খাদ্য সহায়তা আমাদের কাছে খুব বেশী গ্রহনযোগ্য মনে হয়নি তাই সাধ্যের মধ্যে প্রান্তিক পর্যায়ের বিপন্ন মানুষ খুজে বের করি আমরা। প্রান্তিক পর্যায়ের সত্যিকারের বিপন্ন মানুষের কাছে খাদ্য সহায়তা পৌঁছানোই ফুড ব্যাগ প্রোগ্রামের উদ্দেশ্য। কাঠফাটা রোদে লাইন দিয়ে দাড় করিয়ে খাদ্য সহায়তা আমাদের কাছে খুব বেশী গ্রহনযোগ্য মনেহয়নি তাই সাধ্যের মধ্যে প্রান্তিক পর্যায়ের বিপন্ন মানুষ খুজে বের করি আমরা। এই মানুষগুলো ঠিক লাইনে দাঁড়াতে অভ্যস্ত নয়। করোনার মহামারীর চেয়ে কর্মহীন মানুষগুলোর “না খেয়ে থাকা” আরও বেশী মর্মবেদনার। তাই আসুন এদের জন্য কিছু করি। যারা সহযোগিতা করছেন তাদের সকলকে আন্তরিক ধন্যবাদ। ভালো থাকুক বাংলাদেশ। জয় হোক মানবতার। সবাইকে এ কার্যক্রমে অংশ নেবার আহ্বান জানিয়ে মিরপুর পেশাদার ও উদ্যোক্তা ক্লাব লিমিটেডের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি এস এম মাহাবুব আলম বলেন, আসুন আমাদের সাথে, একসাথে মানবতার জন্য কিছু করি। যারা দেশ এবং বিদেশ থেকে আমাদের সাথে শরিক হয়েছেন এবং হবেন তাদের সকলকে আন্তরিক ধন্যবাদ ও মোবারকবাদ। মহান আল্লাহ আমাদের এই ক্ষুদ্র প্রচেষ্টাকে কবুল করুন। আমাদের চেষ্টা অব্যাহত থাকবে ইনশাআল্লাহ।সকলকে সংগে নিয়েই আজ আমরা এ দূর্যোগের মোকাবিলা করবো। মহান আল্লাহ’তালা আমাদের সহায় হউন। মিরপুর ক্লাবের ফুড ব্যাগ প্রোগ্রামকে যারা বিভিন্নভাবে সহযোগিতা করে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন, তাদের মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলেন সোনালী ব্যাংকের পরিচালক ড. দৌলোতুন্নাহার খানম, স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব জনাব সুশান্ত কুমার সাহা, ইসলামী ব্যাংকের ডিএমডি তাহের আহমেদ চৌধুরি, আবু মোহাম্মদ শোয়েব, ড. মোহাম্মদ শাহ আলম চৌধুরী, মাহমুদ হাসান, ইঞ্জিনিয়ার জসীম উদ্দিন, ইঞ্জিনিয়ার মুহিবুর রহমান, ব্যাংকার মুস্তাফিজুর রহমান, মাহবুব এলাহী, লায়ন গোলাম মোহাম্মদ ফারুকী , লুৎফর রহমান, ইফতেখার রহমান ও আব্দুর রহমান খান জেহাদসহ ক্লাবের অন্যান্য সদস্যবৃন্দ । এই কার্যক্রমের সাথে যেসকল ব্যক্তি বা সংগঠন একাত্বতা ঘোষণা করতে ও সহযোগিতা করতে চান, তাদের ০১৭১১৮০৯০০১ নম্বরে যোগাযোগ ও দুটি বিকাশ নম্বরে ০১৭১৩২১৫০৬৬ ও ০১৭৯৪৪২২৮৯৫ সাহায্য পাঠানোর জন্য অনুরোধ জানানো হয়েছে ক্লাবের পক্ষ থেকে। ইমেইল করতে পারেন, Email: mirpurclubltd@gmail.com.