নিখোঁজের পর মুক্তিযোদ্ধা আইনজীবী হাসান আলী রেজাকে হত্যার ঘটনায় তীব্র নিন্দা এনএলসির

প্রচ্ছদ

টাঙ্গাইলে নিখোঁজের চারদিন পর মুক্তিযোদ্ধা আইনজীবী মিঞা মোহাম্মদ হাসান আলী রেজার (৭৬) লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। এ ঘটনায় তীব্র নিন্দা, ক্ষোভ, গভীর শোক, হতাশা ও দুঃখ প্রকাশ করেছে দেশের সর্বোচ্চ আদালতের আইনজীবীদের সংগঠন ন্যাশনাল ল’ইয়ার্স কাউন্সিল (এনএলসি)। এর সাথে এই ঘটনার প্রকৃত রহস্য উদঘাটন করে দোষীদের দ্রুত বিচারের দাবি জানান সংগঠনটির চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট এসএম জুলফিকার আলী জুনু।

আজ শনিবার বিকেলে গণমাধ্যমে বিবৃতিটি পাঠান এনএলসির প্রধান সমন্বয়কারী ও মুখপাত্র অ্যাডভোকেট এম আমিনুল ইসলাম মুনির। ।

এনএলসির চেয়ারম্যান বিবৃতিতে বলেন, এই হত্যাকাণ্ডের বিরুদ্ধে সোচ্চার হওয়ার জন্য সারা দেশের আইনজীবীদের প্রতি এনএলসির পক্ষ থেকে আহ্বান জানাচ্ছি।

উল্লেখ্য, শনিবার দুপুর ১২টার দিকে পৌরসভার ৩নং ওয়ার্ডের আকুরটাকুর পাড়া এলাকায় নদী থেকে মিঞা মোহাম্মদ হাসান আলী রেজার লাশটি উদ্ধার করা হয়।

প্রবীণ এ আইনজীবী কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ছিলেন।

টাঙ্গাইল সদর থানার ওসি সায়েদুর রহমান জানান, সকাল সাড়ে ১১টার দিকে স্থানীয় লোকজন নদীতে ভাসমান অবস্থায় এক ব্যক্তির লাশ দেখতে পেয়ে পুলিশে খবর দেয়।

পরে পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে। পরে খবর পেয়ে নিহত মিঞা মোহাম্মদ হাসান আলী রেজার ছেলে লিটু এসে তার বাবার লাশ সনাক্ত করেন।

প্রসঙ্গত গত সোমবার ৭৬ বছর বয়সী হাসান আলী রেজা টাঙ্গাইল শহরের সাবালিয়া পাঞ্জাপাড়ার বাসা থেকে চা খাওয়ার জন্য বের হন। এরপর থেকে তিনি নিখোঁজ ছিলেন।

ওই এলাকার একটি ক্লোজড সার্কিট (সিসি) ক্যামেরার ফুটেজে দেখা গেছে, হেলমেট ও রেইনকোট পরা এক যুবকের মোটরসাইকেলের পেছনে চড়ে যাচ্ছেন তিনি।

নিখোঁজের ব্যাপারে পরদিন মঙ্গলবার টাঙ্গাইল সদর থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করা হয়।